Home » সোশ্যাল মিডিয়া » আশুলিয়া কি নিরাপদ বেড়াবার স্থান?
ৃুবজদহৃs

আশুলিয়া কি নিরাপদ বেড়াবার স্থান?

Share Button

ঢাকা. ৯ এপ্রিল:-

আশুলিয়া কি নিরাপদ বেড়াবার স্থান? অনেকে নানা দুর্ঘটনা স্বীকার হচ্ছেন। দরকার প্রয়োজনীয় নিরাপত্তার। ভুক্তভূগী একজনের অভিজ্ঞতা তার ফেসবুক থেকে সংগ্রহ করে পাঠকদের জন্য প্রকাশ করা হল।

-ভেবেছিলাম দুর্ঘটনাটার কথা কাউকে বলবো না কিন্তু পরে মনে হল বন্ধুদের সতর্ক করে দেওয়া দরকার । তাই বলছিঃ গত রবিবার বিকেলে আমি, NTV’র সিনিয়র প্রডিউসার জুনায়েদ বিন জিয়া ও ড্রাইভার রাসেল গিয়েছিলাম আশুলিয়ায় বেড়াতে । সারা বিকেল এদিক-সেদিক ঘুরে সন্ধ্যায় আমরা ঢাকা থেকে বাইপাইল যেতে বেরীবাঁধটি পার হয়ে হাতের বামপাশের ছোট বাজারে থেমে মিষ্টি আর রসমালাই খেলাম । খাওয়া এবং কিছুক্ষণ আড্ডা শেষে দেখলাম প্রায় ৮ টা বেজে গেছে । আমরা ঢাকা ফিরব এমন সময় জুনায়েদ ভাই সিগারেট খেতে চাইলেন । আমি বললাম, চলুন ফেরার পথে রাস্তার ধারে কিছুক্ষণ থেমে বাতাস এবং ধোঁয়া দুইই খেয়ে নেব । ভাই বললেন Good Idea. আমরা সুন্দর ও নির্জন একটি জায়গায় থামলাম । ভাই সিগারেট ধরালেন । আমি আরাম করে রাস্তার ধারে হিসু করলাম…

আমাদের অনেক ভাল লাগছিল । আমরা প্রানভরে বাতাস খাচ্ছিলাম । এরপরেই ঘটলো ঘটনাটা । কোত্থেকে ৪ জন ২০/২২ বছরের প্রায় ল্যাংটা ছেলে বিশাল বিশাল ৪ টা রামদা নিয়ে আমাদেরকে ঘিরে ফেলল । বিশ্বাস করুন আমরা কিছুই টের পাইনি । মনে হল ওরা যেন আকাশ থেকে নেমে এলো! আর ২ – ৩ মিনিটের মধ্যেই সব ঘটে গেলো । ওরা আমাদের সবকিছুই কেঁড়ে নিল । ড্রাইভার রাসেলও রেহাই পেল না । আমার মোবাইল ফোনটি নেবার সময় আমি একটু প্রতিবাদ করতেই… ওহ মাই গড!!

ভাগ্যিস ছেলেটি দয়া করে আমাকে দায়ের ধারালো মুখ দিয়ে কোপ মারেনি, মেরেছে বিপরীত পিঠ দিয়ে ।

আমাদের ঠিক পিছন দিয়ে তখনো কিন্তু শত শত গাড়ি যাচ্ছিল । কেউ থামার প্রয়োজন মনে করেনি…

আমি আল্লাহর রহমতে ভাল আছি, বন্ধুরা । খুব বেশি কিছু হয়নি । সপ্তাহ খানেকের মধ্যে পুরোপুরি ভাল হয়ে যাব ইনশাল্লাহ । আশুলিয়া গেলে খুব সাবধানে যেয়ো, প্লিজ ।

কৃতজ্ঞতা – (https://www.facebook.com/humayun.farid)

Check Also

mahi

বন্ধ জাজের ইউটিউব চ্যানেল

মিডিয়া খবর:- বাংলাদেশের অন্যতম বড় প্রযোজনা সংস্থা জাজ মাল্টিমিডিয়ার ইউটিউব চ্যানেল কপিরাইট জটিলতায় বন্ধ হলো। …

messenger video call

বাংলাদেশেও ফেসবুক অ্যাপস্ মেসেঞ্জারে ভয়েস-ভিডিও কল

মিডিয়া খবর:- বাংলাদেশের গ্রাহকরা এখন থেকে ফেসবুকের টেক্সট মেসেজিং অ্যাপস্ মেসেঞ্জার ব্যবহার করে ভয়েস এবং …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares