Home » অনুষ্ঠান » বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর লহ প্রণাম
rabindranath-thakur

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর লহ প্রণাম

Share Button

ঢাকা:-

আজ বাইশে শ্রাবণ, বুধবার বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ৭৩তম প্রয়াণ দিবস,  ১৩৪৮ বঙ্গাব্দের (৭ আগস্ট ১৯৪১) এই দিনে কবিগুরুর জীবন প্রদীপ নির্বাপিত হয়েছিল।

আজ থেকে ৭৩ বছর আগে পশ্চিমবঙ্গের কলকাতার জোড়াসাঁকোর ঠাকুরবাড়ির শ্যামল প্রাঙ্গণে শ্রাবণের বর্ষণসিক্ত পরিবেশে তিনি পরলোকগমন করেন।  কবিগুরুর প্রিয় ঋতু ছিল বর্ষা। অজস্র রচনায় বাংলার বর্ষাকে তিনি অনিন্দ্য সৌন্দর্যে ফুটিয়ে তুলেছিলেন। বৃষ্টির অজস্র জলধারায় পরিপুষ্ট তার বিচিত্র রচনাসম্ভার। এই বর্ষা ঋতুতেই চিরবিদায় নেন কবি।

আধুনিক বাংলা সাহিত্যের একটি বিশাল ক্যানভাস নির্মাণ করেছেন রবীন্দ্রনাথ। সাহিত্যের সুবিশাল মহীরুহ তিনি। এক অতুলনীয় প্রতিভার দ্যুতিতে, শত সহস্র ধারার সৃজনশীলতায় বাংলা সাহিত্যকে পৌঁছে দিয়েছেন বিশ্বসাহিত্যের মর্যাদাপূর্ণ আসনে।

কাব্য, সংগীত, উপন্যাস, ছোটগল্প, নাটক, প্রবন্ধ, ভ্রমণকাহিনীসহ সাহিত্যের প্রতিটি শাখা তার প্রতিভার স্পর্শে দীপ্তিমান হয়ে উঠেছিল। বাঙালির হৃদয়ানুভূতি ও অভিব্যক্তির সার্থক প্রকাশ ঘটেছে তার বিপুল রচনায়। তার বৈচিত্র্যময় রচনাসম্ভার মহৎ মানবিক আবেদনের মহিমায় হয়ে উঠেছে কালজয়ী।

১৯১৩ সালে প্রথম বাঙালি ও প্রথম এশীয় হিসেবে তিনি লাভ করেন নোবেল পুরস্কার।

সাহিত্যকমের্র পাশাপাশি সমাজ সংস্কার, শিক্ষাবিস্তার, কৃষি উন্নয়নসহ বিভিন্ন কর্মে নিজেকে জীবনব্যাপী সক্রিয় রেখে এক অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করে গেছেন তিনি। তার চিন্তা-কর্ম, বাঙালির সব আন্দোলন-সংগ্রাম ও অগ্রযাত্রায় অনন্ত অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে আছে। তার গান আমাদের জাতীয় সংগীত।

মৃত্যুদিবসে জাতি গভীর শ্রদ্ধায় কবিকে স্মরণ করছে। দেশে ও দেশের বাইরে বাংলাভাষীরা বিশ্বকবিকে স্মরণ করছে গভীর শ্রদ্ধা ও কৃতজ্ঞতায়

Check Also

lucky-akhand

কাঁদালেন লাকী আখন্দ

মিডিয়া খবর :- মিলনায়তনভর্তি দর্শক, সেখানে তখন অন্য রকম পরিবেশ। তারকার মিলনমেলা বললেও ভুল হবে …

noren

বাকশিল্পাচার্য নরেন বিশ্বাস জয়ন্তী উদ্যাপন

মিডিয়া খবর:- গত ১৬ই নভেম্বর ২০১৬ বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ছ’টায় সঙ্গীত, আবৃত্তি ও নৃত্যকলা কেন্দ্র …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares