Home » টিভি নাটক » শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবসের বিশেষ নাটক অভিনেতা এন টিভি তে
abhineta

শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবসের বিশেষ নাটক অভিনেতা এন টিভি তে

Share Button

মিডিয়া খবর :-

১৪ ডিসেম্বর, রবিবার, রাত ৯ টায়…শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবসের বিশেষ নাটক অভিনেতা দেখবেন এন টিভি তে।

ভালো অভিনেতা হিসেবে পাভেলের পরিচিতি রয়েছে। বেশ অনেকগুলো পুরস্কারও রয়েছে। একটি বড় পুরস্কার প্রাপ্তির সংবাদ দিয়েই আমাদের গল্পের শুরু। পাভেলের বয়স ৪৫। স্ত্রী এবং এক সন্তান নিয়ে একটি সুখি পরিবারের চেহারা। এক ছুটির দিনে সিনেমার একজন পরিচালক পাভেলের বাসায় আসেন একটা স্ক্রিপ্ট নিয়ে। একটা মুক্তিযুদ্ধের গল্প। গল্পটা পাভেলের ভালো লাগে। গল্পের প্রধান একটি চরিত্র একজন রাজাকারের। পরিচালক পাভেলকে এই চরিত্রটি করার জন্যে প্রস্থাব করে। মুক্তিযুদ্ধের সময় পাভেলের বয়স মোটে ৬ বছর। তখনকার একটা ছোট্ট স্মৃতি পাভেলের মাথার মধ্যে এখনো গেথে আছে। গল্পের শুরুতে আমরা শুধু এটুকুই জানতে পারি।
শুরু হয় চরিত্রটি তৈরী করবার জন্যে পাভেলের অন্তর্গত প্রস্তুতি। পাভেলের ছোট্ট ছেলেটা খুব আগ্রহ নিয়ে জানতে চায়, বাবা রাজাকাররা কি করতো? কেমন ছিলো?… ইত্যাদি। পাভেল মুক্তিযুদ্ধের উপর নতুন কিছু পড়াশোনাও করে। আমরা বিভিন্ন পর্যায়ে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালিন কিছু দৃশ্য কল্প দেখবো। আর আমরা দেখতে পাবো পারিবারিক আবহের ভেতর দিয়েই পাভেল কিরকম বদলে যেতে থাকে। যেমন…
পাভেলের স্ত্রী, কি এক প্রয়োজনে প্রতিবেশী এক ভদ্রলোকের সঙ্গে কথা বলছিলো। তাই দেখে পাভেল ক্ষেপে যায়। স্ত্রীর গায়ে হাত তুলে। সেই পাভেলকেই আমরা দেখি একদিন শূন্য বাসায় কাজের মেয়েটিকে রেপ করতে উদ্দ্যত হয়। গল্পের অবয়বেই আমরা পাভেলের মধ্যে ধর্মান্ধতা দেখতে পাই। প্রতিবেশী এক হিন্দু ভদ্রলোককে অকথ্য গালাগাল দেয়। বাসা থেকে তাকে তাড়ানোর জন্যে ফন্দি করে। … এই সমস্ত কিছুই আমরা একটি ট্রিটমেন্টের ভেতর দিয়ে দেখবো তার বর্তমান জীবন যাপনের মধ্যে থেকেও। পরবর্তীতে বুঝতে পারবো এ সমস্তই ছিলো তার কল্পনা।  আমরা এও দেখবো ছোট বেলার একটা স্মৃতি পাভেলকে কিরকম তাড়া করে।
গল্পের শেষ দিকে আমরা দেখবো, একটা ছোট্ট বালকের সামনে এক রাজাকার তার বাবাকে খুন করছে। সেই রাজাকার পাভেল নিজেই। এই দৃশ্যটি পাভেল স্বপ্ন দেখবে। স্বপ্ন ভেঙে পাভেল হাউমাউ করে কাঁদে। আর স্ত্রীকে বলে, আমি আমার বাবাকে খুন করছি এরকম একটা চরিত্রে আমি অভিনয়ও করতে পারবো না। আমার মার সারা জীবনের বিলাপ এখনো আমার কানে বাজে। আমি জানি, কি কষ্টে কেটেছে আমার ছেলেবেলা। রাজাকারের চরিত্র আমি করতে পারবো না। অত বড় অভিনেতা আমি হতে পারিনি। একজন অভিনেতা হিসেবে আমি হয়তো অযোগ্য। শিল্পি হিসেবে আমি হয়তো অযোগ্য। … অভিনয়ের সমস্থ পুরস্কার আমি ফিরিয়ে দেবো। … তবু এই চরিত্রটি আমি করতে পারবো না।

অভিনয় করেছেন  মোশাররফ করিম, রুনা খান, খায়রুল আলম টিপু , শিশির রহমান, দুখু সুমন, নিজাম লিটন, শুভক্তগিন শুভ, সোহাগ, সুজয়, মৌসুমি, মতিন, আকাশ, মাহের ফারাবি, ইসতিয়াক।

রচনা: মাসুম শাহরীয়ার। পরিচালনা: আবু হায়াত মাহমুদ (০১৯১১৬৬২২৪৩)। সম্পাদনা – রমজান আলি

অ্যানিমেশন – আরেফিন সরকার    ক্যামেরায় – নাজমুল হাসান, আরমান সহ পরিচালক – রাহাত রেজা, জুলহাস, ইসতিয়া

Check Also

marumos-story

এনটিভিতে বাংলায় ভাষান্তরিত জাপানি ধারাবাহিক

মিডিয়া খবর :- বাংলাদেশ ও জাপানের মধ্যে সাংস্কৃতিক বন্ধন আরো দৃঢ় করতে ঢাকাস্থ জাপানি দূতাবাসের …

nil-josna

শনিবার থেকে বিটিভিতে নীল জোছনা

মিডিয়া খবর :- আজ ২৪ ডিসেম্বর শনিবার সন্ধ্যা ৭টা থেকে বাংলাদেশ টেলিভিশনে দেখা যাবে কথাসাহিত্যিক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares