Home » অনুষ্ঠান » পদ্মা-মেঘনা-ডাকাতিয়ার মোহনায় ইত্যাদি
ittadi

পদ্মা-মেঘনা-ডাকাতিয়ার মোহনায় ইত্যাদি

Share Button

মিডিয়া খবর:- 

জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ইত্যাদি’র দেশ পরিক্রমার ধারাবাহিকতায় এবারের পর্ব ধারণ করা হয়েছে চাঁদপুরের পদ্মা-মেঘনা-ডাকাতিয়ার মিলনস্থলের পাশেই বড়স্টেশন মোলহেডে। শেকড় সন্ধানী এ অনুষ্ঠানটিতে সব সময়ই দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে প্রচারবিমুখ, জনকল্যাণে নিয়োজিত মানুষদের খুঁজে এনে তাদের বিভিন্ন কর্মকান্ড তুলে ধরা হয়। যাতে তাদের এসব কাজ দেখে অন্যরাও অনুপ্রাণিত হতে পারেন। এবারের পর্বেও রয়েছে তেমনি কয়েকটি হৃদয়ছোঁয়া প্রতিবেদন। রয়েছে চাঁদপুরের কন্যা ‘বেগম’ পত্রিকার সম্পাদক নূরজাহান বেগমের একান্ত সাক্ষাৎকার। যিনি নিজে একটি নাম, একটি প্রতিষ্ঠান। রয়েছে ময়মনসিংহ জেলার একটি যৌথ পরিবারের ওপর অনুকরণীয় প্রতিবেদন। কোন ভিনদেশী সাংস্কৃতিক আগ্রাসনের কু-প্রভাবে প্রভাবিত না হয়ে ৪০ সদস্যবিশিষ্ট যে পরিবারটি এখনও একত্রে বসবাস করছে।

এবারের ইত্যাদি’তে মূল গান রয়েছে একটি। যেহেতু এ অনুষ্ঠানটি এখন দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে গিয়ে ধারণ করা হয় এবং সেই অঞ্চলের শিল্পীদের দিয়েই গান করানো হয়, সেই ধারাবাহিকতায় এবারে গান গেয়েছেন চাঁদপুরেরই চারজন শিল্পী সাদী মোহাম্মদ, রূপালী চম্পক, এসডি রুবেল ও দিনাত জাহান মুন্নি। গানটি লিখেছেন কবির বকুল, যার বাড়িও চাঁদপুরে। গানটির সংগীতায়োজন করেছেন আলী আকবর রূপু। নৃত্যে রয়েছে চাঁদপুরেরই কৃতী সন্তান নৃত্যতারকা শিবলী মোহাম্মদের পরিচালনা ও অংশগ্রহণে স্থানীয় অর্ধশতাধিক নৃত্যশিল্পীর পরিবেশনায় একটি লোকনৃত্য।

এবারের দর্শক পর্বে চাঁদপুরকে ঘিরে করা প্রশ্নোত্তরের মাধ্যমে হাজার হাজার দর্শকের মাঝ থেকে ৪ জনকে নির্বাচন করা হয়। চাঁদপুরের বিভিন্ন ঐতিহ্যবাহী জিনিস নিয়ে কবির বকুলের লেখা একটি গানের সুর ও পরিবেশনের মাধ্যমে দ্বিতীয় পর্বে বিজয়ী নির্বাচন করা হয়। যা ছিল বেশ উপভোগ্য। এ বছরের শেষ অনুষ্ঠান হিসেবে অনুষ্ঠানের শেষে ছিল ইত্যাদি’র এ বছরের অর্জন ও প্রাপ্তি নিয়ে একটি ফলোআপ প্রতিবেদন। নিয়মিত পর্ব হিসেবে এবারও রয়েছে যথারীতি মামা-ভাগ্নে, নানি-নাতি ও চিঠিপত্র বিভাগ। রয়েছে বিভিন্ন সমসাময়িক ঘটনা নিয়ে বেশ কিছু সরস অথচ তীক্ষ্ণ নাট্যাংশ। বাড়ি ভাড়ায় টিভি অনুষ্ঠানের প্রভাব, কথা কেনাবেচা, খবর পাঠিকার জবর সাক্ষাৎকার, পদপ্রার্থীর পদ নিতে প্যাঁচাল, চা নিয়ে চেঁচামেচি, হারানো কৃষ্টির দিকে দৃষ্টিসহ বিভিন্ন বিষয়ের ওপর রয়েছে বেশ কয়েকটি নাট্যাংশ।

বরাবরের মতো এবারও ইত্যাদি’র শিল্প নির্দেশনা ও মঞ্চ পরিকল্পনায় ছিলেন অনুষ্ঠানের নিয়মিত শিল্প নির্দেশক মুকিমুল আনোয়ার মুকিম। পরিচালকের সহকারী হিসেবে ছিলেন যথারীতি রানা ও মামুন। সব শ্রেণী-পেশার মানুষের প্রিয় অনুষ্ঠান ইত্যাদি’র এ পর্বটি একযোগে বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে প্রচার হবে আগামী ৫ই ডিসেম্বর রাত ৮টার বাংলা সংবাদের পর। ‘ইত্যাদি’ রচনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনা করেছেন হানিফ সংকেত। নির্মাণ করেছে ফাগুন অডিও ভিশন। আর স্পন্সর করেছে যথারীতি কেয়া কসমেটিকস লিমিটেড।

Check Also

lucky-akhand

কাঁদালেন লাকী আখন্দ

মিডিয়া খবর :- মিলনায়তনভর্তি দর্শক, সেখানে তখন অন্য রকম পরিবেশ। তারকার মিলনমেলা বললেও ভুল হবে …

noren

বাকশিল্পাচার্য নরেন বিশ্বাস জয়ন্তী উদ্যাপন

মিডিয়া খবর:- গত ১৬ই নভেম্বর ২০১৬ বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ছ’টায় সঙ্গীত, আবৃত্তি ও নৃত্যকলা কেন্দ্র …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares